Sunday, March 3, 2024
Latest Newsদেশফিচার নিউজ

মোদী সরকারের কৃষি বিলের প্রতিবাদে ভারত বন্‌ধ, দেশ জুড়ে বিক্ষোভে কৃষকরা

দৈনিক সমাচার, ডিজিটাল ডেস্ক : আজ শুক্রবার গোটা দেশজুড়ে ৩১টি কৃষক সংগঠন ভারত বনধের ডাক দিয়েছে। সর্বভারতীয় কৃষক সংগঠন, ভারতীয় কৃষাণ ইউনিয়ন, অল ইন্ডিয়া কৃষাণ মহাসঙ্ঘ এবং সর্বভারতীয় কিষাণ সংঘর্ষ কো-অর্ডিনেশন কমিটি দেশ জুড়ে বনধ এর ডাক দিয়েছে। কর্ণাটক, তামিলনাড়ু ও মহারাষ্ট্রের কৃষকরাও এই বনধে অংশ নিয়েছেন। এআইটিইউসি সহ দশটি কেন্দ্রীয় ট্রেড ইউনিয়নও এই বনধকে সমর্থন করেছে।

পঞ্জাব ও হরিয়ানাতে এই বন্‌ধের প্রভাব সবথেকে বেশি। অমৃতসর, জালন্ধর, লুধিয়ানা, অম্বালা। চণ্ডীগড় সহ সেখানকার বিভিন্ন জায়গায় পথ অবরোধ করছেন বিভিন্ন কৃষক সংগঠনগুলি। জালন্ধরের কাছে সকাল থেকেই অমৃতসর-দিল্লি জাতীয় সডকত অবরোধ করেছে ভারতীয় কিষান ইউনিয়ন ও রেভোলিউশনারি মার্ক্সিস্ট পার্টি অব ইন্ডিয়া। অম্বালাতে বিক্ষোভের জেরে বন্ধ রয়েছে দিল্লি-চণ্ডীগড় বাস পরিষেবা। লুধিয়ানার চিত্রটাও একই রকম। কিষান মজদুর সংঘর্ষ কমিটি বৃহস্পতিবার থেকেই পঞ্জাব জুড়েই চালাচ্ছে ‘রেল রোকো’ অভিযান। আজও তা অব্যাহত রয়েছে।

বৃহস্পতিবার কংগ্ৰেসও জানিয়েছিল, যে তাঁরা এই বনধকে সমর্থন করবে, এছাড়াও তৃণমূল কংগ্রেস, আপ, এনসিপি, বাম দলগুলি এবং আরজেডি সহ আঠারোটি বিরোধী দলের পক্ষ থেকে নতুন তিনটি কৃষি বিলে সই না করার অনুরোধ করা হয়েছে রাষ্ট্রপতির কাছে‌। সংসদে পাশ হওয়া তিনটি কৃষি বিলের প্রতিবাদে তিনদিন ধরে পাঞ্জাব ও হরিয়ানায় ‛রেল রোকো’ কর্মসূচি নিয়েছিলেন কৃষকরা। আইন করে নূন্যতম সহায়ক মূল্য নিশ্চিত করার দাবিতেই এই বনধের ডাক দিয়েছেন কৃষকরা। এদিকে বিক্ষোভ দেখানোর সময় আইন শৃঙ্খলা ও কোভিড বিধি মেনে চলার জন্য কৃষক সংগঠনের কাছে অনুরোধ করেছেন পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং। তিনি জানিয়েছেন, ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করলেও কৃষকদের বিরুদ্ধে কোনো এফআইআর দায়ের করা হবে না।

 

Leave a Reply

error: Content is protected !!