Saturday, March 2, 2024
Latest Newsদেশফিচার নিউজ

বিহারে ৩২ আসনে লড়বে ওয়াইসির ‘মিম’, ঘুম উড়েছে এনডিএ মহাজোটের

দৈনিক সমাচার, ডিজিটাল ডেস্ক: বিহারে আসন্ন বিধানসভার নির্বাচনে ‘মজলিশ – ই ইত্তেহাদুল মুসলেমিন’ (মিম) মাঠে নামায় আরজেডি নেতৃত্বাধীন মহাজোট ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে‌। আগামী অক্টোবর – নভেম্বর মাসে বিহারে বিধানসভা নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এমন পরিস্থিতিতে সব রাজনৈতিক দল রাজনৈতিক ও সামাজিক সমীকরণ নিরাপণে ব্যস্ত রয়েছে। মুসলিম – বাদব বা ‘ এম ওয়াই’ সমীকরণের কারণে রাজ্যের প্রধান বিরোধী দল রাষ্ট্রীয় জনতা দলের প্রধান লালু প্রসাদ যাদব ১৫ বছর ক্ষমতায় ছিলেন। আরজেডি ওই সামাজিক সমীকরণের কারণে রাজ্যে পুনরায় ক্ষমতায় ফিরে আসার স্বপ্ন দেখছে‌। কিন্তু বিহার বিধানসভা নির্বাচনে হায়দ্রাবাদের সাংসদ সদস্য ব্যারিস্টার আসাদউদ্দিন ওয়াইসি’র দল ‘ মিম’ এর প্রবেশের ফলে আরজেডি নেতৃত্বাধীন মহাজোটের সমীকরণ বিগড়ে যাওয়ার আশঙ্কা রয়েছে‌।

বিহারে মুসলিম জনসংখ্যা ১৬ শতাংশ। এবং ‘ যাদব ‘ সম্প্রদায়ের রয়েছে ১৪ শতাংশ। লালুপ্রসাদ যাদবের নেতৃত্বাধীন আরজেডি বাদবদেরকে নিজেদের ভোটব্যাঙ্ক বলে মনে করেন। বিহার বিধানসভার ২৪৩ আসনের মধ্যে কমপক্ষে চার ডজন বা ৪৭টি আসনে মুসলিম জনসংখ্যার হার ২০ – ৪০ শতাংশ হওয়ায় তাঁরা ওই সকল কেন্দ্রের নির্বাচনে প্রার্থীদের জয় – পরাজয় নির্ধারণ করে। যেহেতু রাজ্যের রাজনৈতিক সমীকরণ এবং জোটের অবস্থান ২০১০ সালের বিধানসভার নির্বাচনের মতো। সেজন্য , আসা করা হচ্ছে সেই অনুযায়ী ভোট দানের ধরণ হবে‌। ২০১৫ সালে ক্ষমতাসীন জেডিইউ এবং বিজেপি আলাদাভাবে নির্বাচন লড়েছিল। নীতিশ কুমারের দল জেডিইউ লালুপ্রসাদের দল আরজেডি এবং কংগ্ৰেসের সাথে যৌথভাবে ( মহাজোট) প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছিল। কিন্তু জেডিইউ বর্তমানে বিজেপির সাথে গিয়েছে। ২০১০ সালেও বিজেপি ও জেডিইউ একসাথে নির্বাচন লড়েছিল।

২০১০ সালের নির্বাচনের ফলাফলের তথ্যের দিকে লক্ষ্য করলে দেখা যাবে, ৪০ শতাংশের বেশি মুসলিম জনসংখ্যা অধ্যুষিত ১১টি আসনের মধ্যে পাঁচটি জিতেছে এনডিএ ( বিজেপি – ৪ এবং জেডিইউ – ১) জোট। আরজেডি কেবল একটি আসন জিততে পেরেছিল‌ এবং কংগ্ৰেস দুটি আসন দখল করেছিল। এই আসনগুলো সীমাঞ্চল ও কোশি এলাকায় ছিল, যেখানে সর্বাধিক মুসলিম জনসংখ্যার ঘনত্ব রয়েছে। ৩০ – ৪০ শতাংশ মুসলিম জনসংখ্যা অধ্যুষিত সাতটি বিধানসভার আসন রয়েছে।

২০১০ সালে এনডিএ তাদের মধ্যে ছয়টি (বিজেপি – ৫, জেডিইউ – ১) আসনে জয়ী হয়েছিল। রাজ্যে ২০ থেকে ৩০ শতাংশ মুসলিম জনসংখ্যা অধ্যুষিত ২৯ টি বিধানসভার আসন রয়েছে। এ্য মধ্যে এনডিএ ২৭টিতে জয়ী হয়। (বিজেপি-১৬, এবং জেডিইউ – ১১) এক্ষেত্রে আরজেডি কেবল ১টি আসন জিতেছিল। মুসলিম অধ্যুষিত ৪৭ আসনের মধ্যে ৩৮ জয়ী হয়েছিল এনডিএ। কিন্তু গত দশ বছরে রাজনৈতিক ও সামাজিক সমীকরণে পরিবর্তন হয়েছে।

 

 

Leave a Reply

error: Content is protected !!